কম্পিউটার প্রযুক্তি

ম্যাক অ্যাড্রেস

আজকে যে বিষয়টি আলোচনা করতে চাই, তাহলো ম্যাক অ্যাড্রেস। ‘মিডিয়া অ্যাক্সেস কন্ট্রোল’ এই ৩টি শব্দের আদ্যাক্ষর নিয়ে গঠিত হয়েছে ম্যাক। বলা বাহুল্য, অ্যাপেল এর ম্যাকিনটোশ কম্পিউটার নয় এটি। কম্পিউটার হার্ডওয়্যারের বিশেষ করে নেটওয়ার্ক সম্পর্কিত ডিভাইসগুলোর মধ্যে একটি করে যে অনন্য অ্যাড্রেস বা নম্বরই তাই হলো ম্যাক অ্যাড্রেস। সাধারণত প্রস্তুতকারক কোম্পানি ডিভাইসের জন্য ম্যাক অ্যাড্রেস নির্ধারিত করে দেয়, যা আর বদলানো যায় না। জানা থাকা ভালো—ইথারনেট কার্ড, ওয়াইফাই কার্ড, ব্লুটুথ ডঙ্গেল ও ওয়াইম্যাক্স কার্ড ইত্যাদি ডিভাইসের জন্য আবশ্যিকভাবে একটি করে ম্যাক অ্যাড্রেস রয়েছে। আর পৃথিবীতে নেটওয়ার্ক ডিভাইসের আধিক্যের কারণে ম্যাক অ্যাড্রেস ১২ ডিজিটের হেক্সাডেসিমাল নাম্বার হয়। পাশাপাশি তা জোড়ায় জোড়ায় কোলন দিয়ে লেখা হয় আলাদা করে। পাঠকের সুবিধার্থে এখানে একটি ম্যাক অ্যাড্রেসের নমুনা দেয়া হলো।

যেমন : 00:5d:4c:98:dc:8e ।

উল্লেখ্য, প্রতিটি ডিভাইস প্রস্তুতকারক কোম্পানি তাদের কোম্পানির আইডি, ডিভাইসের কোড নেম ইত্যাদি অনুসারে ম্যাক তৈরি করে। তবে এক্ষেত্রে কিছু সফটওয়্যার ব্যবহার করে সাময়িকভাবে ম্যাক বদলে ফেলা অসম্ভব কিছু নয়।

Comment

comments

What's your reaction?

Excited
0
Happy
0
In Love
0
Not Sure
0
Silly
0

Comments are closed.

Next Article:

0 %