ওয়াইম্যাক্স WiMAX এবং Wi-Fi এর কাজের ধরন একই রকম, WiMAX দিয়ে অনেক বেশী দূরত্বে অনেক বেশী গ্রাহককে সেবা প্রদান করতে পারে। যেসব গ্রামীন জনপদে বিভিন্ন ফোন ও ক্যাবল নেটওয়ার্ক কোম্পানীগুলো সেবা প্রদানে অক্ষম ছিল, সেসব প্রত্যন্ত জনপদে WiMAX নেটওয়ার্কের কল্যানে খুব সহজেই এখন সকল নেটওয়ার্কিং সুবিধা দেওয়া সম্ভব হচ্ছে।

ওয়াইম্যাক্স WiMAX নেটওয়ার্ক দুটি সিস্টেম গঠন করা হয়ঃ

১. একটি WiMAX টাওয়ার আর সেল ফোন টাওয়ার একই রকম। কিন্তু একটি WiMAX টাওয়ার প্রায় ৩,০০০ বর্গ মাইল বা ৮,০০০ বর্গ কি.মি. চেয়ে ও বেশী জায়গা কাভারেজ দিতে পারে।

২. একটি WiMAX রিসিভার- একটি রিসিভার হতে পারে একটি এন্টেনার ছোট বাক্স বা একটি PCMCIA card অথবা একটি ল্যাপটপে যেখানে বর্তমানে Wi-Fi খুব সহজে এক্সেস করতে পারে।

Wimax-Wireless-Network-2

A WiMAX tower station can connect directly to the Internet using a high-bandwidth, wired connection (for example, a T3 line). একটি WiMAX টাওয়ার স্টেশন হাই-ব্যান্ডউইথ বা তার দিয়ে (উদাহরণস্বরূপ, একটি T3 লাইন) সরাসরি ইন্টারনেটের সাথে করতে পারে। একটি লাইন-অফ-সাইট ওমাইক্রোওয়েভ লিঙ্ক ব্যবহার করে একটি WiMAX টাওয়ার অন্য একটি ওয়াইম্যাক্স WiMAX টাওয়ারের সাথে সংযোগ করতে পারে।

What this points out is that WiMAX actually can provide two forms of wireless service: কি এই পয়েন্ট আউট ওয়াইম্যাক্স আসলে বেতার সেবা দুই ফর্ম প্রদান করতে পারেন:

১. যেখানে কোন তার, WiFi i নেই সেখানে আপনি আপনার কম্পিউটারের সাথে একটি ছোট এন্টেনা (মডেম) ব্যবহার করে খুব সহজেই একটি WiMAX টাওয়ারের সাথে কানেক্ট করতে পারেন। এমন অবস্থায় WiMAX 2GHz থেকে 11 GHz (WiFi এর মত) এর লো-ফ্রিকুয়েন্সি ব্যবহার করে। কম ওয়েভরেঞ্জেও ব্যাবহারের সময় কানেকশনে কোন ধরনের সমস্যা হয় না।

১. লাইন-অফ-সাইট হল খোলা ছাদের ওপর ওয়াইম্যাক্স টাওয়ারে একটি এন্টেনা ফিক্সড থাকে।

২. লাইন-অফ-সাইট কানেকশন অনেক শক্তিশালী এবং আরো স্থিতিশীল, ফলে অল্প সমস্যাতেও তথ্য ডাটা অনেক পাঠানো যায়। লাইন-অফ-সাইটে ট্রান্সমিশন ফ্রিকুয়েন্সি সর্ব্বোচ্চ 66 GHz। উচ্চ ফ্রিকোয়েন্সিতে, কম ডাটা লস এবং অনেক বেশী ব্যান্ডউইডথ পাওয়া যায়।

Comment

comments

What's your reaction?

Excited
0
Happy
0
In Love
0
Not Sure
0
Silly
0