পিসির অস্বাভাবিক আচরন এবং তার কারণ ও সমাধান

0

প্রথম পোস্টে মনিটরের বিপ সাউন্ড এ অর্থ বোঝার চেষ্টা করেছি আমরা। বিপ ছাড়াও পিসির আরও কিছু আচরণ দেখে সমস্যা সনাক্ত করা সম্ভব। আর আপনি যদি তা করতে সক্ষম হন তাহলে, পিসির সঠিক সমস্যা সনাক্ত করে তার সমাধান ঘরে বসেই দ্রুত করতে পারবেন। তাহলে আসুন এবার জেনে নেই পিসির সেই রোগগুলোর লক্ষন এবং তার ঔষধ।

১. মনিটর এর আলো যাওয়া আসা করা

  • মনিটর ক্যাবল, ডাটা ক্যাবল, RAM, ডিসপ্লে কার্ড, CPU সংযোগ সহ সকল সংযোগ পরীক্ষা করুন। অনেক সময় দূর্বল সংযোগের কারণে এই ধরনের সমস্যা হয়ে থাকে।

২. FDD LED চলমান ভাবে উজ্জ্বল হয়ে থাকা

  • ডাটা ক্যাবল ঠিক মত সংযোগ পাচ্ছে না। সেক্ষেত্রে নতুন কেবল দিয়ে সংযোগ দিতে হবে। ভেঙ্গে যাওয়া কেবল ব্যবহার করা ঠিক না।

৩. স্ক্রীন এ কোন ডিসপ্লে না থাকা

  • হার্ড ডিস্ক ক্যাবল ভুলভাবে লাগানো হয়েছে। হার্ড ডিস্ক কে্বলের রেড মার্ক দেখে ভালভাবে লাগিয়ে নতুন করে কম্পিউটার অন করতে হবে।

৪. পিসির পাওয়ার এল ই ডি বন্ধ হলে

* মেইন পাওয়ার কার্ড পরীক্ষা করুন

* মাদার বোর্ড এর সংযোগ পরীক্ষা করুন

* CPU এবং মনিটর এর সুইচগুলো আবার পরীক্ষা করুন

৫. CMOS ভুল দেখানো

  • সাধারণত মাদার বোর্ডে লাগানো ৩ভোল্টের ঘড়ির ছোট ব্যাটারিগুলো নষ্ট হয়ে গেলে এই সমস্যা হয়। BIOS থেকে ম্যানুয়ালি আসল সেটিংসটা করুন।

৬. HDD error এবং হার্ড ডিস্ক failure

  • পাওয়ার কর্ড, HDD সংযোগ, ডাটা ক্যাবল পরীক্ষা করুন
  • CMOS এ হার্ড ডিস্ক প্যারামিটারস  এবং Auto detecting Partitions by Fdisk command পরীক্ষা করুন, তারপর set track 0 তে সেট করুন।

৭. পাওয়ার সাপ্লাই এর সমস্যার কারনে মাদার বোর্ড হাং করলে

  • S.M.P.S পরীক্ষা করুন
  • RAM  ঠিক মত কাজ করছে না
  • সফটওয়্যার সমস্যা (নকল সফটওয়্যার ব্যবহার করার কারনে)
  • CPU ফ্যান ঠিক মত কাজ না করলে
  • CPU এর ভিতরে গরম বাতাস থাকা উচিত না

৮. লাফানো স্ক্রীন

  • ডিসপ্লে কার্ড এর সংযোগ পরীক্ষা করুন
  • ভাইরাস এর সমস্যা
  • ভিডিও মেমোরি সমস্যা

৯. স্ক্রীন নড়াচড়া করা

  • আরথিং সমস্যা
  • ম্যাগ্নেটিক ঢেউ আসা

১০. সিপিইউ ক্যাবিনেট শক

  • আরথিং পরীক্ষা করুন
  • মেইন পাওয়ার কর্ড টা পরীক্ষা করুন

১১. নন-সিস্টেম ডিস্ক এরর

  • ফ্লপি ড্রাইভ এ অন্য কোন ডিস্ক থাকা (Non-bootable) অথবা হার্ড ডিস্ক এর জন্য CMOS এর প্যারামিটার ঠিকমত সেট করা না
  • হার্ড ডিস্ক এর পারটিশন নাও হতে পারে
  • হার্ড ডিস্ক মুছে ফেলা নাও যেতে পারে

১২. পিসির Operating system খুজে না পাওয়া

  • কিছু সিস্টেম ফাইল যেমন {command.com}- {User File IO.SYS & MS_ DOS.SYS}- Hidden files খুজে পাওয়া যায় না।এই তিনটি ফাইল সিস্টেম এর স্টার্ট এর জন্য দরকার হয়, যেটা SYS C: command অথবা ফরম্যাটিং টাইম   বাই ফরম্যাট c:/u/s ব্যবহার করে ট্রান্সফার করা যায়।

১৩. কমান্ড ইন্টারপ্রেটর খুজে না পাওয়া

  • Command.com ফাইল টি ভাইরাস এ আক্রান্ত হইছে অথবা কেউ ডিলিট করে দিছে।

১৪. I/O ERROR দেখানো

  • CMOS এ হার্ড ডিস্ক ঠিকমত সেট করা নাও হতে পারে
  • ফরম্যাট এর জন্য যে operating system ব্যবহার করা হয় সেটা বৈধ নাও হতে পারে

১৫. DEVINE OVER-FLOW MESSAGE দেখানো

  • কিছু directories অথবা ফাইল অন্য কোন ফাইল এর সাথে ক্রাশ করা
  • CHKDSK/F অথবা SCANDISK কমান্ড ব্যবহার করুন সঠিক করার জন্য

১৬. প্রসেসিং এর সময় হার্ড ডিস্ক এ গোলযোগ হওয়া

  • পাওয়ার সাপ্লাই ঠিকমত না থাকা
  • সংযোগ দুর্বল হয়ে গেছে কিনা পরীক্ষা করা
  • হার্ড ডিস্ক এর জন্য Y connectors ব্যবহার না করা
  • এটা খারাপ সেক্টর অথবা দুর্বল হার্ড ডিস্ক তৈরি করতে পারে

১৭. প্রসেসিং এর সময় হার্ড ডিস্ক হাং করলে

  • CHKDSK or SCANDISK Command দিয়ে Bad Sector পরীক্ষা করুন। যদি পান, তাহলে হার্ড ডিস্ক ফরম্যাট করুন এবং ঐ এরিয়ার পূর্বে পার্টিশন সেট করুন। (Bad Sector এর সাথে হার্ড ডিস্ক ব্যবহার করার জন্য এই পদ্ধতি) অথবা (Bad Sector যেন Standard Power Supply ব্যবহার করতে না পারে)

১৮. পিসির হার্ড ডিস্ক ডিটেকট করতে না পারা

  • পাওয়ার কানেক্টর পরীক্ষা করা
  • ডাটা ক্যাবল পরীক্ষা করা
  • জাম্পার পরীক্ষা করা

১৯. পার্টিশন না দেখানো

  • operating system এর যেখানে হার্ড ডিস্ক ফরম্যাট করা সেটা বর্তমান মাদার বোর্ড সাথে সাপোর্ট করে না। উদাহরন সরূপঃ Pentium এর সাথে যে হার্ড ডিস্ক ফরম্যাট করা হয়েছে, সেটার পার্টিশনগুলো 486 system এ লুকান থাকবে।

২০. উইন্ডোজ রেজিস্ট্রি এরর

  • হটাৎ করে সিস্টেম এর অন/অফ এর কারনে এটা হয়। সর্বশেষ সমাধান হল operating system কে পুনরায় ইন্সটল করা।

২১. ডিসপ্লের  রঙ না মিললে

  • ডিসপ্লে কার্ড সঠিকভাবে তাদের CD র সাথে স্থাপন করা
  • স্ট্যান্ডার্ড সেটিংস্‌ ফর উইন্ডোজ  কে ৮০০*৬০০ তে সেট করা। এটা ভালভাবে চলতে সাহায্য করে

২২. Unknown device found

ড্রাইভার ইউটিলিটি operating system এর সাথে দেওয়া না ও থাকতে পারে। ঐ device টির জন্য driver CD থেকে সফটওয়্যার install করতে হবে।

Ponom

শওকত হোসেন পনম
কম্পিউটার সাইন্স এন্ড ইন্জিনিয়ারিং (ইস্টার্ন ইউনিভার্সিটি)

Comment

comments

Comments are closed.