রং এর সংকেত

0

রং সবসময় তার নিদর্শন শক্তির জন্যই সুপরিচিত। বোঝার ক্ষমতা ও বিশ্লেষণ করাই রংকে সময়ের সাথে সাথে তাল মেলাতে এবং বিভিন্ন দেশ ও সাংস্কৃতিক পর্যায়ে পৌঁছাতেও সাহায্য করেছে। রং দিয়ে সুখ, ভালবাসা এমনকি কস্টকেও ফুটিয়ে তুলেছেন অনেক শিল্পী। তাই কিছু ছবিতে রং এর ব্যবহার তুলে ধরার চেস্টা করা হল। আসা করি কাজে আসবে ।

লাল

পল গাউগুইন(১৮৪৮-১৯০৩) “ভিশন আফটার দি সারমন”১৮৮৮(অয়েল অন ক্যানভাস)

আগুন ও রক্তের সাথে সব সময় লাল এর সম্পর্ক। বিপদ, ক্রোধ এবং নিষ্ঠুরতা বোঝানোর জন্যও লাল রং ব্যবহার করা হয়। এছাড়াও লাল রং হৃদয়, ভালবাসা এবং উত্তেজনাকে বোঝায়।

কমলা

মার্ক রথকো(১৯০৩-১৯৭০) “কমলা এবং হলুদ”১৯৫৬(অয়েল অন ক্যানভাস)

কমলা রং সৃজনশীলতা, বদল, শক্তি এবং ধৈর্যকে বোঝায়। কমলা রং শর‌‌‍‍ৎ‌‌কালকেও বোঝায়। অপ্রধান রং হওয়ার জন্য এটি রংয়ের মূল পদার্থগুলোকে একত্র করে। কমলা লাল রংয়ের শক্তি ও হলুদের উল্লাস হিসেবেও আত্মপ্রকাশ ঘটায়।

হলুদ

ভিনসেন্ট ভ্যান গঘ(১৮৫৩-১৮৯০) “সূর্যমূখী”১৮৮৯(অয়েল অন ক্যানভাস)

হলুদ হচ্ছে সূর্যের রং, আমাদের গ্রহের অবলম্বন। এটি মূলত প্রাণ, শক্তি, আনন্দ, ভরসা, আশা এবং আত্মজ্ঞানের বহিঃপ্রকাশ। এ রংটি বন্ধুত্বের ও প্রতীক।

সবুজ

পল সেজান্নে(১৮৩৯-১৯০৬) “দি ব্রাইড এট মাইনেসি”১৮৩৯((অয়েল অন ক্যানভাস)

সবুজ হচ্ছে মুসলিমদের ঐতিহ্যবাহী রং। সবুজ বলতে আমরা মূলত প্রকৃতি যেমন গাছপালা, পাতার রংকে বুঝে থাকি। মাঝে মাঝে এটি কিছু নেতিবাচক (হিংসা, অনভিজ্ঞতা) বৈশিষ্ট্যও তুলে ধরে।

নীল

জেম্’স ম্যাকনেইল রিস্টলার(১৮৩৪-১৯০৩) নকটার্ণ,ব্লু এন্ড সিলভার :চেলসি,১৮৭১ (অয়েল অন উড)

 

নীল হচ্ছে সবচেয়ে স্থির এবং উদাসীন রং। আকাশের রং হিসেবে এটি স্বর্গ প্রতিনিধি হিসেবে প্রাচীনকাল থেকে ব্যবহার করা হচ্ছে। শাস্ত্রীয় পুরাণে নীলকে দেবতার রং হিসেবেও উল্লেখ করা হয়েছে।

কালো

Black

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

কালো রং দ্বারা মূলত আমরা অন্ধকারাচ্ছন্ন বুঝি। এটি মৃত্যু, মন্দ, জাদুবিদ্যা, ভয় এবং শোকের রং হিসেবে ব্যবহৃত হয়ে থাকে। দুঃখ ও পীড়াদায়ক বিষয়ের জন্য কালো একটি যথাযথ রঙ।

সাদা

White

সাদা রং শান্তি, বিশুদ্ধতা এবং ধার্মিকতার প্রতিনিধিত্বতে ব্যবহৃত হয়।

Comment

comments

Comments are closed.